আন্তর্জাতিক

স্বর্ণখচিত মসজিদে ব্রুনাইয়ের প্রিন্সের বিয়ে

রাজধানী বন্দর শেরিবেগাওয়ানে স্বর্ণখচিত একটি মসজিদে ইসলামিক রীতিতে ব্রুনাইয়ের প্রিন্স আবদুল মতিন ইয়াং মুলিয়া আনিশা রোজনাহর সঙ্গে বাগদান সম্পন্ন করেন। জমাকালো এক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন তারা। রাজপরিবারের বাইরে থেকে ইয়াং মুলিয়া আনিশা রোজনাহ’কে বিয়ে করেছেন তিনি। তার বিয়ের আনুষ্ঠানিকতা চলবে ১০দিন ধরে।
৭ই জানুয়ারি শুরু হয়েছে এই আনুষ্ঠানিকতা। শেষ হবে মঙ্গলবার। প্রিন্স মতিনের বয়স ৩২ বছর। তিনি সুলতান হাসানা বলকিয়ার ১০ম রাজনৈতিক উত্তরসূরি। এ উপলক্ষ্যে উৎসব চলছে। তেলসমৃদ্ধ সালতানাতে প্রদর্শন করা হচ্ছে প্রাচুর্য্য।
১৭৮৮ কক্ষবিশিষ্ট রাজপ্রাসাদ উৎসবের আনন্দে মেতেছে। রোববার সেখানে আয়োজন করা হয়েছে নয়নাভিরাম অনুষ্ঠান। তাতে উপস্থিত থাকবেন আন্তর্জাতিক পর্যায়ের অতিথিরা। এর মধ্যে আছেন রাজপরিবারের সদস্যরা এবং রাজনৈতিক নেতারা। অনুষ্ঠানকে কল্পকাহিনীর মতো রূপ দেয়া হবে।
এমনটা বর্ণনা করে বিশ্ববিদ্যালয় পড়ুয়া শাহিদা ওয়াফা মোহামেদ শাহ (২২) বার্তা সংস্থা এএফপিকে বলেছেন, বিয়ের অনুষ্ঠান হবে ওমর আলি সাইফুদ্দিন মসজিদে। এর কাছে সাধারণ জনগণের মধ্যে দেখা দিয়েছে উৎসাহ উদ্দীপনা। বড় রকমের একটি গাড়িতে বহন করা হবে দম্পতিকে। সেই দৃশ্য দেখার জন্য সেখানে অপেক্ষা করছে মানুষ।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button