খেলা

ক্রীড়া প্রতিষ্ঠান যেনো ক্যাসিনো প্রতিষ্ঠানে পরিণত না হয় -গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী

গৃহায়ন ও গণপূর্ত মন্ত্রী শ ম রেজাউল করিম বলেছেন, “ক্রীড়া প্রতিষ্ঠান যেনো ক্যাসিনো প্রতিষ্ঠানে পরিণত না হয়।অনৈতিক প্রতিষ্ঠানে পরিণত না হয়। অনৈতিকতায় যিনি জড়িয়ে যাবেন, তাকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বরদাশত করবেন না।

শুক্রবার বিকেলে রাজধানীর বঙ্গবন্ধু স্টেডিয়ামে বাংলাদেশ এ্যাথলেটিক ফেডারেশনের উদ্যোগে আয়োজিত ৩৫তম জাতীয় জুনিয়র (বয়সভিত্তিক) এ্যাথলেটিক প্রতিযোগিতা ২০১৯ এর উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ক্রীড়া সংগঠকদের উদ্দেশ্যে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

গণপূর্ত মন্ত্রী বলেন, “বর্তমান সরকার ক্রীড়া বান্ধব সরকার। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যেভাবে ক্রীড়াঙ্গনে পৃষ্ঠপোষকতা প্রদান করেন, ক্রীড়াবিদদের বিকাশে ভূমিকা পালন করেন এরকম দৃষ্টান্ত উপমহাদেশে দ্বিতীয়টি নেই। আজকের জুনিয়র ক্রীড়াবিদরাই আগামী দিনে সারা পৃথিবীতে আমাদের অ্যাম্বাসেডর হবে। বিশ্ব পরিমন্ডলে বাংলাদেশের মুখ উজ্জ্বল করে অনন্য নজির সৃষ্টি করবে।”

মন্ত্রী আরো বলেন, “সরকার ক্রীড়াকে সকল পৃষ্ঠপোষকতা দিতে প্রস্তুত। তবে ক্রীড়াবিদদের ক্রীড়ার প্রতি মনযোগী হতে হবে, আন্তরিক ও নিষ্ঠাবান হতে হবে। দেশের মুখ উজ্জ্বল করতে হবে। নৈতিকতা ও মূল্যবোধের অবক্ষয় থেকে বেরিয়ে আসতে হলে ক্রীড়া চর্চার কোন বিকল্প নাই। ক্রীড়া চর্চার মাধ্যমে শহর থেকে গ্রাম সবখানে সকলকে উজ্জীবিত করে তুলতে হবে।”

বাংলাদেশ এ্যাথলেটিক ফেডারেশনের সহ-সভাপতি মোঃ তোফাজ্জল হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য প্রদান করেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের যুব ও ক্রীড়া বিষয়ক সম্পাদক ও সাবেক সংসদ সদস্য মোঃ হারুনুর রশীদ, বাংলাদেশ সুপ্রীম কোর্ট বার এসোসিয়েশনের সভাপতি এডভোকেট এম আমিন উদ্দিন ও ওয়ালটন গ্রুপের এক্সিকিউটিভ ডিরেক্টর এফ এম ইকবাল বিন আনোয়ার ডন। অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য প্রদান করেন বাংলাদেশ এ্যাথলেটিক ফেডারেশনের সাধারণ সম্পাদক এডভোকেট আব্দুর রকিব মন্টু।

অনুষ্ঠান শেষে প্রধান অতিথি প্রতিযোগিতায় বিজয়ী কয়েকজন প্রতিযোগীর হাতে পুরস্কার তুলে দেন।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker