জাতীয়

জনবান্ধব থানা গড়তে চান ডিএমপি কমিশনার।

জনবান্ধব থানা গড়ে তুলতে চান নবনিযুক্ত ডিএমপি কমিশনার মোহাম্মদ শফিকুল ইসলাম। দায়িত্ব নেয়ার পর প্রথম মিট দ্য প্রেসে তিনি বলেছেন, থানায় সেবা নিতে আসা কাউকে যেনো হয়রানি করা না হয়। ডিএমপির অধীনস্ত থানায় যদি মানুষ সেবা না পায় তাহলে সিনিয়র অফিসারদের বসানোর কথা জানিয়েছেন নতুন কমিশনার।
দায়িত্ব নেয়ার পর এই প্রথম তিনি সাংবাদিকদের মুখোমুখি হলেন।
ডিএমপি কমিশনার বলেন, থানায় সেবা নিতে আসা কাউকে যেন কোনও ধরনের হয়রানি না করা হয়, সে বিষয়ে লক্ষ রাখতে হবে। ডিএমপি’র অধীনস্থ কোনও থানায় যদি জনগণ কাঙ্ক্ষিত সেবা ও ভালো আচরণ না পায়, তাহলে আমার সিনিয়র অফিসারদের থানায় বসাবো। প্রয়োজনে আমি নিজে থানায় বসে ওসিগিরি করবো। এলাকার লোকদের সঙ্গে কথা বলবো।
তিনি বলেন, আমি দায়িত্ব নেওয়ার পরেই ঢাকার সব থানার ওসি ওডিসিদের সঙ্গে বসেছিলাম। তাদের প্রয়োজনীয় ও কঠোর মনিটরিংয়ের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। সাধারণ মানুষ যাতে পুলিশ ভীতি থেকে বের হতে পারে, সেই ব্যবস্থা নিতে হবে।
মোহাম্মদ শফিকুল ইসলাম বলেন, থানায় যেন অসহায় বা অপরাধের শিকার হয়ে কোনও মানুষ হয়রানি ছাড়া মামলা ও জিডি করতে পারে। থানা থেকে বের হলে যেন তার মধ্যে এই বোধ থাকে যে, পুলিশ তার সহযোগিতা করবে—তা নিশ্চিত করতে হবে।
তিনি বলেন, সাধারণ মানুষ যাতে পুলিশের দ্বারা হয়রানি, চাঁদাবাজির শিকার না হয়, পুলিশি সেবার বিপরীতে যাতে আর্থিক লেনদেন না হয়, সেদিকেও নজর রাখবো। কারও বিরুদ্ধে যদি কোনও অভিযোগ থাকে, তাহলে তার বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button

Adblock Detected

Please consider supporting us by disabling your ad blocker